বিয়েতে গান-বাজনা করলে জানাজা নামাজ পড়াবে না মসজিদের ইমাম

বিয়ে এবং অন্যান্য অনুষ্ঠানে গান-বাজনা করা নিষেধাজ্ঞা জারী করে মাইকিং করা হয়েছে নারায়ণগঞ্জের বন্দরের একটি এলাকায়।ইসলাম ধর্মের কেউ যদি এই আদেশ অমান্য করে তাহলে তাঁদের বিয়ে পোড়ানর জন্য এবং তাঁদের পরিবারের কেউ মারা গেলে সেই বিয়ে পোড়ানর কাজে এবং জানাজা করার জন্য মসজিদের ইমাম এবং এলাকার কেউ অংশগ্রহণ করবেন না বলে মাইকে ঘোষণা করা হয়েছে।

নারায়ণগঞ্জের বন্দর ইউনিয়ন পরিষদের ১ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য সাব্বির আহম্মেদ ইমন আমাদের এই প্রতিনিধিকে জানান,গত শুক্রবার  জুমার নামাজের পর এই এলাকার স্থানীয় পঞ্চায়েত এবং মসজিদ কমিটি মিলে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।এবং এই সিদ্ধান্তে আমার সম্মতি আছে বলেই সম্পূর্ণ ওয়ার্ড জুরে এই ঘোষণা মাইকিং করা হয়েছে।

বন্দর ইউপি সদস্য সাব্বির আহম্মেদ ইমন বিভিন্ন গনমাধ্যমকে জানিয়েছেন,গত শুক্রবার বাগে জান্নাত জামে মসজিদ কমিটির সভাপতি মিজানুর রহমান জুমার নামাজের খুতবার আগে বিয়ে এবং অন্যান্য অনুষ্ঠানে গান বাজনার বিষয়টি মসজিদে শোবার সামনে তুলে ধরেন।এবং নামাজের পর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় যে,বিয়েতে গান-বাজনা করলে জানাজা নামাজ পড়াবে না মসজিদের ইমাম এবং অন্য কেউ অংশ গ্রহন করবেন না।এবং এই তথ্য সঠিক বলে নিশ্চিত করেন বন্দর ইউপি সদস্য সাব্বির আহম্মেদ ইমন।

এদিকে এই বিষয়টি যখন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে ভাইরাল হয় তখন অনেকের মধ্য বিরুপ প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে।অনেকেই এই সিদ্ধান্তকে বাড়াবাড়ি বলে আখ্যা দিয়েছেন।

নারায়ণগঞ্জের বন্দর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এবং উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সভাপতি এম এ রশীদ বলেন, এই রকম সিদ্ধান্ত কেউ নিতে পারেন না।আমি এই বিষয়ে খোঁজ নিচ্ছি।আমি রবিবার ইউনিয়ন পরিষদে গিয়ে এই বিষয়ে তদন্ত করব এবং উক্ত ইউপি সদস্যকে ডেকে যথাযথ ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।