মুরাদ টাকলা এবং ফেইসবুক ও গুগুল মামুর আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স

ফেইসবুক ও গুগুল মামুর আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স আজ ধরা খাইছে!বৌয়ের সাথে যখন চ্যাটিং করি তখন বৌ আমার সাথে মুরাদ টাকলা ভাষায় চ্যাটিং করে।কয়কেদিন আগে বৌকে বললাম “তোমার বর বাংলা ভাষায় ইয়া লম্বা লম্বা ফেইসবুক স্টেটাস দিয়ে হাগার হাগার লাইক কামায় আর তুমি তার বৌ হয়ে মুরাদ টাকলা ভাষায় চ্যাটিং করো?”বৌ জিগাইল “মুরাদ টাকলা কী?”

আমি বলছি “পরে ডিটেইলস কমু”

চ্যাটিং করতে দেরি কিন্তু আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স দেরি করে নাই। ল্যাপটপে ইউটিউব খোলাই ছিল। চ্যাটিং শেষে মোবাইলটা পকেটে ঢোকাতে দেরি কিন্তু ইউটিউবে সাজেশন আসতে দেরি হলো না। ‘টাকলা’ নামের একটা গান ভিডিও সাজেশনের লিস্টে কোথা থেকে উদয় হয়েছে। গানটা শুনলাম, ভালোই লাগল। এরপরে শুরু হলো বিপত্তি। ফেইসবুক গুগুল মামু ‘টাকলা’ কী ওয়ার্ড টাকে আমার সাথে রিলেটেড মনে করে ফেইসবুকে বিজ্ঞাপন দেখানো শুরু করল।

একটা বিজ্ঞাপনে দেখাল ‘এক লোকের টাকের উপরে কী একটা মেডিসিন স্প্রে করল আর লোকটার চুল গজিয়ে উঠল!”আরেকটা বিজ্ঞাপনে দেখাল “কী একটা ঔষধ খেলে টাক সমস্যার সমাধান করা যায়”এরকম ৫/৬ টা বিজ্ঞাপন দেখাল টাক বিষয়ে। শুধু তাই নয় টাকলুদের ফেইসবুক গ্রুপের সাজেশন ও দিল কয়েকটা। কয়েকটা পেইজও হোম পেইজের ঘোরাঘুরি করছে।সমস্যা সমাধানের জন্য সবগুলো বিজ্ঞাপনের ডান পাশে ক্লিক করে hide ad দিয়ে not relevant অপশনে ক্লিক করলাম। তারপর থেকে এইসব বিজ্ঞাপন দেখানো বন্ধ হলো।

যারা মুরাদ টাকলা সম্মন্ধে জানেন না তাদের জন্য বলছি- যারা বানিশে লেখেন তারা এভাবে লেখেন ami tomaka valobasi.এরকম এক মুরাদ টাকলার সাথে এক ব্লগারের ঝগড়া হচ্ছিল। সেটা মনে হয় ২০০৭/৮ এর দিকে। ঝগড়ার এক পর্যায়ে মুরাদ টাকলা বলল murad takla samne ay.মানে মুরোদ থাকলে সামনে আয়।ইংলিশে লেখা প্রথম দুই অক্ষরই ইতিহাসের পাতায় স্থান নিয়ে নেয়। সেই থেকে যারা বাংলিশে লিখে তাদের নাম হয়ে গেল murad takla মানে মুরাদ টাকলা!লিখেছেনঃ লালসালু শপ এর অনার ফখরুল ইসলাম

Leave a Comment