ফেসবুক পেজে লাইক বাড়ানোর কিছু আনকমন পদ্ধতি

বর্তমান সময়ে সোশ্যাল মিডিয়া ব্যাবহার করে অনেকেই অনলাইন ভিত্তিক বিজনেস করছেন।আর অনলাইনে বিজনেস করতে বিশেষ করে ফেসবুক পেজের গুরুত্ব অপরিসীম।আর শুধু আপনার ফেসবুক পেজ থাকলেই হবে না তাতে অবশ্যই একটি ভালো পরিমানের লাইক থাকতে হবে।সুতরাং আজকের আর্টিকেল এর টাইটেল দেখেই বুঝতে পারছেন আমাদের আজকের আর্টিকেল এর বিষয় কি?আজকের আর্টিকেল এর মাধ্যমে আমরা এমন কিছু পদ্ধতি জানবো যেগুলো ব্যাবহার করে খুব সহজেই আমারা আমাদের ফেসবুক পেজের লাইক বাড়াতে পারব।

১। কন্টেস্ট এর আয়োজন করে পেজে লাইক নিয়ে আসা

শুধু পেজ লাইকের জন্য কন্টেস্ট আয়োজন করতে পারেন, আপনার পেজের মধ্যে, এটা আপনি আপনার ওয়েবসাইটে করতে পারেন, কেউ যখন ওয়েব সাইটে আসবে তখন একটা পপ আপ বক্স আসবে সেখানে লেখা থাকবে “আমাদের পেজে লাইক দিন, জিতে নিন ” ” । আমরা বিভিন্ন রকম পপ আপ বক্স দেখতে পাই বিভিন্ন ওয়েব সাইট ওপেন করার পর, সেখানে ইমেইলে সাবস্ক্রাইবের ব্যাপারটাই বেশি থাকে, তবে আপনারা চাইলে এইভাবে লাইক আনার একটা প্ল্যান করতে পারেন।

২। QR Code এর মাধ্যমে লাইক আনা যেতে পারে

এটা একটা আনকমন পদ্ধতি হতে পারে, তবে এটা তারাই করতে পারবে যাদের ফিজিক্যাল স্টোর আছে, স্টোরের বিভিন্ন যায়গায় আপনার পেজের QR Code দিয়ে দিবেন একটা কাগজে প্রিন্ট করে, কাস্টোমাররা QR Code স্ক্যান করলে আপনার পেজে চলে যাবে এবং আপনার পেজে লাইক দিবে।

৩। অর্ডার চেক আউট কনফার্ম পেজের মাধ্যমে

কেউ যখন আপনার ওয়েবসাইট থেকে কিছু কিনলো তখন স্বাভাবিক ভাবেই তাকে ধন্যবাদ জানানো হয়, সেখানে “Follow Us” এর একটা সেকশন রেখে ফেসবুক পেজের লিঙ্ক দেয়া যেতে পারে, অনেকেই সেখানে লাইক দিবে।

৪। কন্টেন্ট লক করে লাইক ব্যাবস্থা করতে পারেন

অনেকেই এটা করে, হয়তো একটা গুরুত্বপূর্ণ আর্টিকেল আপনি পড়তে চাচ্ছেন, পড়তে গিয়ে দেখবেন কন্টেন্ট লক, দুই তিন লাইনের বেশি পড়া যায় না, পড়তে গেলে তাদের ফ্যান পেজে অথবা অফিসিয়াল পেজে লাইক দিতে হবে। এটা আপনিও করতে পারেন, আপনার ওয়েব সাইটে কিছু গুরুত্বপূর্ণ কন্টেন্ট দিলেন আর সেটা আনলক হবে তখনই যখন কেউ আপনার পেজে লাইক দিবে।

৫। 404 পেজের মাদ্ধমেও লাইক আসতে পারে আপনার পেজে

অনেক সময়ই আপনার সাইটের সার্ভার ডাউন থাকতে পারে 404 পেজ আসতে পারে সেখানেও আপনি ইচ্ছা করে আপনার ফেসবুক লাইকের বাটন ইউজ করতে পারেন এবং বলতে পারেন ভিজিটরদের সেখানে লাইক দিতে, এখানে আরেকটা কাজ করা যেতে পারে সেটা হচ্ছে 404 পেজ তো আসলো, আপনি ইউজারদের বলতে পারেন বিকল্প হিসেবে আপনার ফেসবুক পেজে ঘুরে আসতে,এর মধ্যে আপনার সাইটেও ঠিক হয়ে গলো।

৬। ইমেইল সিগনেচার অথবা বিজনেস কার্ডের মাধ্যমে

এটা যদিও ওতটা আনকমন পদ্ধতি না, অনেকেই এটা করে থাকে তবে এটা ইফেক্টিভ একটা পদ্ধতি, আপনার ইমেইল সিগনেচারে ঠিকানার পর শেষের দিকে আপনার ফেসবুক পেজের লিঙ্ক দিতে পারেন বলতে পারেন লাইক দিতে।অথবা আপনার বিজনেস কার্ডে আপনার পেজের ইউজার নেম দিয়ে দিতে পারেন, অনেকেই হয়তো সেখান থেকে লাইক দিবে, বিজনেস কার্ডের QR Code এও একই কাজ করতে পারেন।

৭। পেইড লাইক

ফেসবুকে ফেসবুক পেজ লাইকের যে সিস্টেম আছে সেভাবে লাইক আনেন, এটা একদমই আন কমন নয়, তারপরও আমার মনে হলো এটা লেখায় দেয়া উচিৎ তাই দিলাম।পেজের লাইক বাড়ানোর জন্য আমারা প্রায় সবাই ফেসবুক পেজের পেইড লাইক সিস্টেম ব্যাবহার করে থাকি, এটা অবশ্যই ইফেক্টিভ একটা পদ্ধতি অবশ্যই তবে লক্ষ্য রাখবেন কেউ যেন চোখ বন্ধ করে আপনার পেজে লাইক না দেয়, এটার মানে হচ্ছে কিছু না দেখে, না শুনে, না বুঝে কোন লাইক কেউ দিলে সেই লাইকের কোন ভ্যালু থাকে না, তাই চেস্টা করবেন এমন ভাবে লাইক আনার জন্য যেন যে লাইক দিচ্ছে সে আপনার পেজ দেখে, শুনে, বুঝে লাইক দিচ্ছে কিনা, সেটা যদি হয় তাহলে প্রতিটা পেজ লাইক আপনার কাজে আসবে কোন না কোন ভাবে।লিখেছেনঃ Ariful Islam স্যার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *