ব্যবসার সম্প্রসারনে কেন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং করতে হবে?

বিংশ শতাব্দীর এই সময়ে সোশ্যাল মিডিয়ার বেবহারকারী বেড়েছে বহুগুন।সামাজিক যোগাযোগের জন্য আমরা এখন মাক্সিমাম সময়ই সোশ্যাল মিডিয়া কে মাধ্যম হিসাবে ব্যাবহার করছি।কিন্তু এই সোশ্যাল মিডিয়া সুধু একে অপরের সাথে যোগাযোগের মাধ্যম ই নয়।আপনি চাইলেই এই সোশ্যাল মিডিয়া কে ব্যাবহার করে আপনার ব্যবসার সম্প্রসারন করতে পারবেন।কি শুনতে একটু অবাকই লাগছে!যে ফেসবুক অথবা অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া ব্যাবহার করে কীভাবে আমরা আমাদের ব্যবসার সম্প্রসারন করতে পারি।আপনার যদি এই কথা শুনতে অবাক লাগে তাহলে এই আর্টিকেলটি মনোযোগ দিয়ে পড়া শুরু করুন।তাহলেই বুঝতে পারবেন কীভাবে আমরা সোশ্যাল মিডিয়াকে ব্যাবহার করে আমাদের ব্যবসার সম্প্রসারন করে নিতে পারি।

ফেসবুক,টুইটার ইত্যাদি সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইট গুলো ব্যাবহারকারীরা তাদের নিজের প্রয়জনেই বেওহার করে থাকে।আর এই সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইট গুলো একটির চাইতে অন্যটির সেবার ধরন আলাদা হবার কারনে একই ব্যাবহারকারী প্রায় সব সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইটে তাদের নিজেদের অ্যাকাউন্ট তৈরি করে থাকে।আর সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইট গুলোতে প্রতি মুহূর্তে নতুন কন্টেন্ট পাওয়া যায়।আর সে কারনেই মানুষের দিন দিন সোশ্যাল মিডিয়া ব্যাবহার করার চাহিদা বেড়েই চলেছে।আর এই ব্যাবহার করার সুযোগই নিচ্ছে বিভিন্ন কোম্পানি,তাঁরা এই ব্যাবহারকারীদের টার্গেট করে তাদের প্রতিষ্ঠান অথবা প্রোডাক্ট এর বিজ্ঞাপন দিচ্ছে সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইটে।আর এই বিজ্ঞাপন দিয়ে প্রতিষ্ঠান অথবা প্রোডাক্ট এর প্রচারই মূলত সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং।

সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইট ব্যাবহার করে কীভাবে আপনার প্রতিষ্ঠানের অথবা প্রোডাক্ট এর প্রচার করবেন এর আসলে কোন নির্দিষ্ট নিয়ম নাই।সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং এর প্রচার কোন নির্দিষ্ট এলাকা ভিত্তিক করা হয়ে থাকে।প্রচার শুরু করার আগে সেই এলাকার মানুষের আগ্রহ সম্পর্কে রিসার্চ করে নেওয়া হয়।অর্থাৎ সেই এলাকার মানুষ কোন ধরনের কন্টেন্ট দেখতে পছন্দ করে,কি ধরনের প্রোডাক্ট ব্যাবহার করে,সেই এলাকার মানুষ অনলাইনে কেনাকাটা করতে অভ্যাসত কি না,তাঁরা দিনের কোন সময়ে সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইট গুলোতে একটিভ থাকে এই রকম আরও অনেক বিষয়।এর পর তাদের সেই Activity এর উপর নির্ভর করে সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং শুরু করা হয়।

একটা সময় ছিল যখন এই সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইট গুলো ছিল না।তখন লিফলেট,পোস্টার,টিভি এবং রেডিও ব্যাবহার করে কোন প্রতিষ্ঠানের অথব প্রোডাক্ট এর প্রচার চালানো হত।কিন্তু সময়ের সাথে সাথে বদল হয়েছে মানুষের আচার-আচারন,মানুষ আগে টিভি তে সিনেমা দেখত এখন ইউটিউবে দেখে।কারন এখন মোবাইল,কম্পিউটার এবং ইন্টারনেট এর ব্যাবহার বেড়েছে।সেই সাথে কমেছে মানুষের টিভি দেখা।সুতরাং বর্তমান সময়ে টিভি তে অ্যাড দেওয়ার চাইতে ইন্টারনেটে অ্যাড দেওয়া যেকোনো প্রতিষ্ঠান অথবা প্রোডাক্ট এর জন্য বেশী ফলপ্রসু।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *